Site icon অনলাইন আয়ের ব্লগ

সোস্যাল মিডিয়া মার্কেটিংআজকে আপনাদের সাথে কথা বলবো গ্রুপে কেন একটিভ থাকব।

group active

তো আমি মূলত একজন ডিজিটাল মার্কেটার ও ই-কমার্স নিয়ে কাজ করছি। আজকে ডিজিটাল মার্কেটিং এর তথ্য উপাত্তের ভিত্তিতে আজকে আমি কথা বলব কেন আমরা গ্রুপে একটিভ থাকব?

ইমেল মার্কেটিং শিখতে কত খরচ করতে হবে?

সাধারণত আমরা যখন কোন ক্যাম্পেইন করি, ফেসবুকে বা কোন ক্যাম্পেইন বুষ্ট করি তখন কিন্তু আমরা টার্গেট করি অডিয়েন্স, বয়স, তার কি কি পছন্দ সে বিষয়ের উপর আমরা পোস্ট করি। তখন অ্যাড বিভিন্ন কাস্টমারের কাছে দেখায় এবং সেখান থেকে কাস্টমাররা আমাদের পোস্টে লাইক, কমেন্ট অথবা মেসেজ করে কিন্তু দেখা গেছে যে পরিমাণ লাইক কমেন্ট অথবা মেসেজ আসে অথবা ফোন আসে তার সে তুলনায় সেল হয় না। সাধারণত দেখা গেছে টেন পার্সেন্ট কমবেশি কনফার্ম হয় অনেক সময় ক্যাম্পেইন ভালো হলে আরও বেশি হওয়ার চান্স থাকে।

মেসেঞ্জার মার্কেটিং করে আপনার ইনকাম ১০ গুণ বৃদ্ধি করুন

তো আমরা যখন গ্রুপে একটিভ আমাদের সাথে আমাদের গ্রুপের মেম্বারদের একটা পরিচিতি হয়। আমাদের একটা ট্রাস্ট বিল্ডআপ হয় এবং আমরা খুব সহজেই আমাদের পণ্য আমাদের গ্রুপের মেম্বারদের কাছে পরিচিতি করতে পারি এবং আমাদের বিক্রি বাড়াতে পারি। আমাদের পণ্যের গ্রহণযোগ্যতা বাড়তে থাকে এবং প্রচার এর জন্য আমরা কোন পোস্ট করি তখন অটোমেটিক সেল জেনারেট হয়। সাধারণত ফেসবুকে দেখা যায় যে, এক হাজার লোকের কাছে অ্যাড পৌঁছাতে এক ডলার খরচ হয় তো আমাদের গ্রুপে যদি এখন এক লক্ষ নব্বই হাজার প্লাস মেম্বার আছে সেই হিসাবে এক লক্ষ নব্বই হাজার লোকের কাছে আপনার এড করতে কত খরচ পড়বে 190 ডলার সেখানে আমরা গ্রুপে পোস্ট করলে আমাদের এক টাকাও খরচ হচ্ছে না। আর আমরা যখন পোস্ট করি বুঝতে কে আমাদের লাইক কমেন্ট আছে ঠিকই কিন্তু সেখানে ছেলে আসবে কিনা সেটার কোন নিশ্চয়তা থাকে না অর্থাৎ আপনি বুস্ট করে টাকা খরচ করছেন কিন্তু আপনার বুষ্টের টাকা উঠবে কিনা তারও কোনো নিশ্চয়তা নাই কিন্তু গ্রুপে আমরা কোন প্রকার খরচ ছাড়াই ফ্রিতে আমাদের প্রোডাক্ট মার্কেটিং করার সুযোগ পাচ্ছি।
অনেক প্রোডাক্ট বাস সার্ভিস আছে যেটা আপনি গ্রুপ থেকে খুব ইজিলি সেল করতে পারবেন কিন্তু এড এর মাধ্যমে সেল পড়ার চান্স কম থাকে যেমন একটা উদাহরণ দিতে পারি ধরুন গ্রুপে আমি দীর্ঘদিন ধরে একটিভ এবং সবাই আমাকে ট্রাস্ট করে সবার সাথে আমার পরিচিত এখন আমি যদি অফার করি যে আমি ব্লাড সেল করবো তাহলে কিন্তু অনেকেই আগ্রহ দেখাবে অনেকেই আমার থেকে কিনতে যাবে কারণ আমি দীর্ঘদিন ধরে গ্রুপে একটিভ আছি সবার সাথে আমার রিলেশন ভালো। সবার সাথে আমার যোগাযোগ আছে, সবাই আমাকে বিশ্বাস করে তারা জানে যে আমার থেকে কিনলে প্রতারিত হওয়ার চান্স নেই। কিন্তু আপনি যদি এখন এই পোস্টটায় ফেসবুকে বুষ্টিং করেন তাহলে কিন্তু ফেসবুকের যে অডিয়েন্স আছে তারা কিন্তু আপনার সম্বন্ধে জানে না, আপনাকে চেনে না, আপনার থেকে সেই সার্ভিস নাও নিতে পারে এজন্য গ্রুপে একটিভ থাকার কোনো কোনো সময় ফেসবুক বুস্টিং এর চেয়েও বেশি কাজ করে।
আপনি যদি গ্রুপে অ্যাক্টিভ থাকেন এখান থেকে আপনার ফ্রেন্ডলিস্ট বাড়বে, আপনার পরিচিতি বাড়বে, এখান থেকেই অটোমেটিক সেল হবে এবং আমরা অলরেডি আমাদের মঙ্গল হাটবার দেখতে পাচ্ছি যে আমাদের খুব ভালো একটা সেল হচ্ছে। কোন প্রকার বুষ্টিং খরচ ছাড়াই গ্রুপে একটিভ থাকলে আমরা আর কি কি পেতে পারি।

ইনোসেন্টের শরবত-১: হোয়াট ইজ দি বিগ আইডিয়া

এখান থেকে আমরা আমাদের বিজনেস নেটওয়ার্ক পেতে পারি।
আমাদের পণ্য বা সার্ভিস এর বিক্রি পেতে পারি। আমাদের বিজনেসের জন্য মূলধন পেতে পারি।

বিশেষ করে যারা প্রবাসে আছেন তারা অনেকেই আমাদের গ্রুপ মেম্বারদের বিভিন্ন প্রজেক্টে বিনিয়োগ করছেন, অল রেডি আমরা আমাদের শ্রদ্ধেয় ইকবাল বাহার স্যারের ভিডিও থেকে এর সফলতার ভিডিও দেখতে পেরেছি।

বিশেষ করে ভিডিও পরিচিতি বাড়ানোর জন্য খুবই ভাল একটি প্ল্যাটফরম কারণে এখানে আমরা সরাসরি আমাদের পেইজ দেখাতে পারছি এবং সবার সাথে পরিচিত হতে পারছি তাই এখন থেকে আমাদের চেয়ে জড়তা কাটানোর চেষ্টা আছে এটা আমি নিয়মিত করার চেষ্টা করব আর আশা করি আপনারা যারা আছেন আপনারা রেগুলার পোস্ট করবেন ধন্যবাদ সবাইকে
রুবেল খান
ব্যাচ: ষষ্ঠ
রেজিস্ট্রেশন নাম্বার 3998
উত্তরা ই-কমার্স বিজনেস করছি পাইকারি বাজার ঢাকা
এবং ডিজিটাল মার্কেটিং কনসালটেন্সি

Exit mobile version